অবিচল ও অনড় খালেদা জিয়া

নিউজগার্ডেন ডেস্ক : গ্রেফতারি পরোয়ানা জারির পরেও আন্দোলনে অনড় ও অবিচল newsgarden24রয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন ও ২০ দলীয় জোটের র্শীর্ষ নেতা বেগম খালেদা জিয়া। গ্রেফতারসহ যেকোন পরিণতির জন্য প্রস্তুত আছেন বলে সম্প্রতি গণমাধ্যমে এক বিবৃতিতে উল্লেখ করেছিলেন তিনি। বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতারা বলছেন, গ্রেফতার হলেও আন্দোলন থেকে একচুলও নড়বেন না বিএনপি চেয়ারপারসন। খালেদা জিয়া গ্রেফতার হলেও চলমান দাবি আদায়ের গণআন্দোলন থেকে বিন্দুমাত্র পিছু হটবেন না বা আন্দোলন শিথিল করা হবে না বলেও জানিয়েছেন খালেদা জিয়ার সঙ্গে থাকা একাধিক দায়িত্বশীল সূত্র। বিএনপির গুলশান কার্যালয় থেকে গ্রেফতার হতে পারেন এজন্য তিনি প্রয়োজনীয় প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছন। ওষুধসহ ব্যবহারের জন্য কাপড় গুছিয়ে রেখেছেন। তার অনুপস্থিতে কিভাবে আন্দোলন চলবে সে ব্যাপারে আগে থেকেই তৃণমূল পর্যায়ে ‘আন্দোলনের ছক’ বুঝিয়ে দিয়েছেন। সেই নির্দেশনা অনুযায়ীই তৃণমূল নেতাকর্মীরা কর্মসূচি বাস্তবায়ন করে যাবে বলে গুলশান কার্যালয়ের সূত্র জানিয়েছে। দলের পক্ষ থেকে ধারাবাহিকভাবে মুখপাত্রের দায়িত্ব পালনের জন্য নির্ধারণ করে দিয়েছেন তিনি। কেন্দ্রীয় নেতারা গ্রেফতার হলেও যাতে কর্মসূচি পালনে কোন বিঘœ না ঘটে সেজন্য দায়িত্ব বন্টন করে রেখেছেন। নেতাদের মধ্যে একের পরে এক গ্রেফতার হলেও দায়িত্ব পালনের জন্য সিরিয়াল নির্ধারণ করে দিয়েছেন তিনি। খালেদা জিয়ার গুলশান কার্যালয়ের নেতাদের মধ্যে একাধিক দায়িত্বশীল সূত্র জানায়, খালেদা জিয়া গ্রেফতার হওয়ার জন্য মানসিক ও দলীয়ভাবে প্রস্তুতি নিয়ে আছেন। তিনি যে কোন পরিণতির জন্য প্রস্তুত রয়েছেন। এ বিষয়ে খালেদা জিয়ার প্রেসসচিব মারুফ কামাল খান বলেন, গ্রেফতারি পরোয়ানা নিয়ে খালেদা জিয়া উদ্বিগ্ন নন। বরং আগের মতই দাবি আদায়ের আন্দোলনে অনড় রয়েছেন। তার কার্যালয়ের একটি দায়িত্বশীল সূত্র জানায়, গ্রেফতার আশঙ্কা নয়, গ্রেফতার হতে পারেন এমনটি ধরেই তিনি গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের আন্দোলনের নেতৃত্ব দিয়ে যাচ্ছেন। সূত্র দাবি করে, খালেদা জিয়া আপোসহীন নেত্রী। কাজেই কোন ধরনের অন্যায়ের কাছে তিনি আপোস করেননি, করবেন না। সূত্রটি আরো বলে, খালেদা জিয়ার জন্য গ্রেফতার নতুন কিছুই না। তিনি এর আগেও একাধিকবার জনদাবি আদায় ও গণতন্ত্রের জন্য আন্দোলন করতে গিয়ে গ্রেফতার হয়েছেন। খালেদা জিয়ার প্রেস উইংয়ের কর্মকর্তা শায়রুল কবির খান বলেন, খালেদা জিয়া গত ৫ জানুয়ারি বিএনপির গুলশান কার্যালয় থেকে পূর্ব ঘোষিত কর্মসূচি পালনের জন্য বের হওয়ার সময়ে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা যেভাবে পিপার-স্প্রে নিক্ষেপ করেছে, তখনই প্রতিফলিত হয়েছে এরপরে আ’লীগ আরো কঠিন কাজ করতে পারে। তিনি আরো জানান, এই সরকারের কোন ধরনের কর্মকাণ্ডে দেশপ্রেমী খালেদা জিয়া বিন্দুমাত্র বিচলিত নন। গতকাল দুটি মামলায় খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছে ঢাকার একটি আদালত। পরোয়ানা রাজধানীর সংশ্লিষ্ট থানায় পাঠানো হয়েছে। এর পর থেকেই বিএনপির গুলশান কার্যালয়ের আশেপাশে ও গেটে পুলিশ বাড়ানো হয়েছে। সাদা পোশাকে পুলিশ ও গোয়েন্দা সদস্যরা গুলশান এলাকায় টহল বাড়িয়েছে। যেকোন সময়ে গ্রেফতার হতে পারেন খালেদা জিয়া এমন খবর এখন দেশ ও আন্তর্জাতিক অঙ্গনে সাড়া ফেলেছে। বাংলাদেশের চলমান রাজনৈতিক সংকটে খালেদা জিয়া গ্রেফতার হলে সংকট কোন দিকে মোড় নেয় তা দেখার জন্য জাতিসংঘ, ইউরোপীয় ইউনিয়নসহ পার্শ্ববর্তীদেশ ও ক্ষমতাধর রাষ্ট্রগুলো নিবিড় পর্যবেক্ষণ করছে বলে জানা গেছে। সূত্র : শীর্ষনিউজডটকম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*