অধ্যাপক জাহাঙ্গীর আলম ইউএসটিসির উপাচার্য

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১১ জুন ২০১৯, মঙ্গলবার: চট্টগ্রাম প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (চুয়েট) সাবেক উপাচার্য ও পুরকৌশল বিভাগের অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম ইউনিভার্সিটি অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি চট্টগ্রামের (ইউএসটিসি) নতুন উপাচার্য হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের (বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়) উপসচিব জিন্নাত রেহানা স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে। চিঠিতে বলা হয়েছে, আগামী চার বছরের জন্য ইউএসটিসির উপাচার্য হিসেবে ড. মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলমকে নিয়োগ দেয়া হয়েছে। এর আগে ২০১৪ সালের অক্টোবরে ইউএসটিসির উপাচার্য পদে যোগ দিয়েছিলেন অধ্যাপক প্রভাত চন্দ্র বড়ুয়া। প্রায় আট-নয় মাস আগে তার মেয়াদ শেষ হওয়ার পর বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. নুরুল আবছার ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। নবনিযুক্ত উপাচার্য ড. জাহাঙ্গীর আলম চুয়েট থেকে ছুটি পাওয়ার পর ইউএসটিসির উপাচার্য পদে যোগ দেবেন।

অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম ২০১২-২০১৬ সাল পর্যন্ত চুয়েটের উপাচার্য হিসাবে দায়িত্বপ্রাপ্ত ছিলেন। তিনি ইউনেস্কো ফেলোশিপের অধীনে ভারতের আন্না বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ১৯৮৯ সালে এম. ইঞ্জিনিয়ারিং (স্ট্রাকচারাল ইঞ্জিনিয়ারিং) এবং ১৯৯৪ সালে পুরকৌশল বিষয়ে একই বিশ্ববিদ্যালয় হতে পিএইচডি ডিগ্রি অর্জন করেন। ১৯৯৯ সালে নেদারল্যান্ড ফেলোশিপের অধীনে মেসিডোনিয়া ইউনিভার্সিটি অফ সেন্ট মেথোডিয়াস থেকে আর্থকোয়েক ইঞ্জিনিয়ারিং বিষয়ে ইন্টারন্যাশনাল পোস্ট-গ্র্যাজুয়েট স্টাডিজ সম্পন্ন করেন।

দীর্ঘ শিক্ষকতা জীবনে তিনি প্রায় ৫০টির ও অধিক জাতীয় ও আর্ন্তজাতিক জার্নাল/কনফারেন্স প্রকাশনা করেন। ড. জাহাঙ্গীর বাংলাদেশের ইনস্টিটিশন অব ইঞ্জিনিয়ার্সসহ দেশে ও বিদেশের প্রায় ১২টির অধিক প্রফেশনাল সোসাইটির সদস্য। ড. মো. জাহাঙ্গীর চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের নগর উন্নয়ন কমিটি এবং বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলনের একজন সক্রিয় সদস্য। তিনি একজন ভূমিকম্প বিষয়ে বিশেষজ্ঞ প্রকৌশলী এবং গবেষক। ভূমিকম্পের প্রকৌশল গবেষণা ও জনসচেতনার্থে অনেক প্রবন্ধ ও গ্রন্থ প্রকাশ করেন। চুয়েটে ভূমিকম্প প্রকৌশল গবেষণা কেন্দ্র স্থাপন করেন।

এছাড়া তিনি ২০১৮ সালে শিক্ষা ও নেতৃত্ব খাতে গুরুত্বপূর্ণ অবদানের স্বীকৃতিস্বরুপ যুক্তরাষ্ট্রের কমনওয়েলথ বিশ্ববিদ্যালয়ের থেকে সম্মানসূচক ডক্টরেট ডিগ্রি লাভ করেন। পাশাপাশি পরিবেশ বিষয়ক গবেষণা ও প্রযুক্তি উদ্ভাবন ক্যাটাগরিতে ২০১৩ সালে চট্টগ্রাম বিভাগীয় ‘পরিবেশ পদক’ লাভ করেন। তিনি ২০১৩ সালে ইউনেস্কো সম্মাননা অ্যাওয়ার্ড পান। জাতিসংঘের অন্যতম সংস্থা ইউনেস্কোর বহুমুখী প্রকল্প ইউএডিপির উদ্যোগে পেশাভিত্তিক অসাধারণ কর্মকাণ্ড ও জনকল্যাণে অগ্রণী ভূমিকা রাখার স্বীকৃতিস্বরূপ ইউনেস্কা সম্মাননা অ্যাওয়ার্ডে ভূষিত হন।

বর্তমানে তিনি চুয়েটের পুরকৌশল বিভাগে অধ্যাপনার পাশাপাশি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট সদস্য এবং রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেট সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*